টাউট গ্রেফতার: SSKM হাসপাতালে চার টাউট গ্রেফতার | কলকাতার খবর | Touts Arrested: Four Touts Arrested At Sskm Hosp | Kolkata News

 

touts arrested টাউট গ্রেফতারকলকাতা পুলিশ রবিবার রাত থেকে সোমবারের মধ্যে চিকিৎসা বিক্রেতাদের বিরুদ্ধে অভিযান চালায়, চার ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে যারা নগদ টাকার জন্য এসএসকেএম হাসপাতালে ভর্তির প্রতিশ্রুতি দিয়ে পরিবারের সদস্য এবং রোগীদের কেলেঙ্কারি করেছে।
অভিষেক মল্লিক দেব মল্লিক এবং অজয় বাল্মীকি সকলেই ভবানীপুরে থাকেন; এই ব্যক্তিদের গ্রুপ ডি কর্মচারী এবং হাসপাতালের চুক্তিভিত্তিক কর্মচারীদের সাথে সম্পর্ক রয়েছে বলে বিশ্বাস করা হয়েছিল। অপর এক ব্যক্তি, সুরিন্দর কুমার (30), 244, AJC বোস রোড থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশ রিপোর্ট করেছে যে সে রোগীদের কাছ থেকে 2000-25000 রুপি নিয়েছে; অনেকে গয়না বা অন্যান্য মূল্যবান জিনিসপত্রও দিয়েছিলেন পাওনা টাকার বিনিময়ে, যাদের কাছে তা ছিল না।

এনআরএস হাসপাতালের প্রাঙ্গণে এর আগে দুই টাউটকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল এবং সাগর দত্ত মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল থেকে পরিচালিত একটি বিস্তৃত র‌্যাকেট উন্মোচিত হয়েছিল। একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন যে অনেক ব্যক্তি তাদের বিরুদ্ধে বারবার সতর্ক করার পরেও টাউটের শিকার হয়।
সম্প্রতি, আমরা নিম্নলিখিত নিবন্ধগুলি প্রকাশ করেছি।
সম্প্রতি কলকাতা হাসপাতালের এসএসকেএম হাসপাতালে চার ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে যে অভিযোগে রোগীদের চিকিৎসার জন্য প্রতারিত করা হয়েছে যারা রাষ্ট্র-চালিত হাসপাতালে বেআইনিভাবে কাজ করছে, এই দুর্বৃত্তদের সমর্থন করছে যেমন টিএমসি বিধায়ক মদন মিত্র অভিযোগ করেছেন। কলকাতা পুলিশের অ্যান্টি-রাউডি বিভাগ (এআরএস) দ্বারা গ্রেপ্তার করা হয়েছিল, যারা সেখানে কাজ করে এবং পরিবারের সদস্যদের এবং রোগীদের রাষ্ট্রীয় সুবিধাগুলিতে যত্ন নেওয়ার জন্য প্রতারিত করে এমন ক্ষুদ্র অপরাধীদের বিরুদ্ধে লড়াই করার প্রয়াসে। এই অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির প্রাসঙ্গিক ধারা অনুসারে এই অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির প্রাসঙ্গিক ধারাগুলির অধীনে এই অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির প্রাসঙ্গিক ধারাগুলির অধীনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে যেখানে দীর্ঘদিন ধরে পরিবারের সদস্যদের প্রতারিত করার সময় সেখানে লঙ্ঘনের অভিযোগ রয়েছে। চিকিৎসার জন্য সাহায্য চাইতে আসা, টিএমসি বিধায়ক মদন মিত্রের মতে, যে দাবি করেছিল যে টিএমসি রাজ্যের মধ্যে একটি বড় র‌্যাকেট কাজ করছে যেখানে বিশিষ্ট ব্যক্তিরা এই অপরাধীদের সমর্থন করছে এই র‌্যাকেটের অংশ হিসাবে TMC রাজ্যের মধ্যে পরিচালিত এই র‌্যাকেটের অংশ হিসাবে এই অপরাধীদের সমর্থন করছে বিশিষ্ট ব্যক্তিরা। এই অপরাধীদের জড়িত থাকার জন্য বিশিষ্ট ব্যক্তিদের সমর্থন করে TMC রাজ্যের মধ্যে কাজ করছিল।

আরটিওতে, অর্থ-হস্তকারীরা ব্যক্তিগত লাভের জন্য একটি সাহসী চুরি করেছে। সংগ্রহ করা, কর্মকর্তা নিয়োগ করা থেকে শুরু করে ফাইলের ডিক্রিপশন – সবকিছুই ব্যক্তিগত লাভের জন্য নগদ চুরি করার একটি বিস্তৃত পরিকল্পনার অংশ হিসাবে পরিকল্পনা করা হয়েছে।
গুরগাঁওয়ের আঞ্চলিক পরিবহন অফিসে একটি বেআইনি দুর্নীতির স্কিম আবিষ্কৃত হয়েছে, যেখানে কর্মকর্তাদের দ্বারা এজেন্টদের অর্থ প্রদান করা হয়েছিল আবেদনগুলি দ্রুত করার এবং ফাইলগুলি আরও দ্রুত সাফ করার জন্য। এটি কিছু সময়ের জন্য কাজ করছে বলে মনে করা হয় এবং 5-6 কোটি রুপি ($700,000 থেকে $700,000। এজেন্টরা একটি সম্মত শতাংশের অংশ হিসাবে সহায়তা প্রদান করবে; কর্তৃপক্ষ এক্সেল শীট ব্যবহার করে অর্থপ্রদান এবং কমিশনের পরিমাণ ট্র্যাক করেছে যখন একটি তদন্ত দল তখন থেকে এই বিষয়ে আরও তদন্তের জন্য নিযুক্ত করা হয়েছে।

এটিও পড়ুন: কলকাতার সিভিল ইঞ্জিনিয়ার হলেন প্রথম বাঙালি যিনি পৃথিবীর অষ্টম সর্বোচ্চ পর্বত মাউন্ট মানাসলুর সত্যিকারের চূড়ায় পৌঁছেছেন | First Bengali to reach Mount Manaslu

Leave a Comment

Who is Abhishek Banerjee? TMC Kolkata পেঁপে পাতার রস ডেঙ্গু নিরাময় করবে, এক চামচ রসে প্লাটিলেটের সংখ্যা লাখ ছাড়িয়ে যাবে